x

এইমাত্র

  •  গত ২৪ ঘন্টায় করোনায় নতুন সংক্রমিত ২৬৬৬ জন, মৃত ৪৭ জন
  •  ইতালিতে ফের ছড়াচ্ছে করোনা, নতুন রোগীদের সিংহভাগ বাংলাদেশি
  •  মহামারি করোনাভাইরাসে বিশ্বব্যাপী মৃত্যু ৫ লাখ ৬৭ হাজার, আক্রান্ত ১ কোটি ২৮ লাখেরও বেশি
  •  সড়ক দুর্ঘটনা বেড়েছে ৫৬ শতাংশ, জুনে নিহত ৩৬৮
  •  আল-জাজিরায় সাক্ষাৎকার দেয়া বাংলাদেশি রায়হানের ভিসা বাতিল

ট্রাম্পের মোতায়ন করা সেনাদের তাড়াল মেয়র

প্রকাশ : ০৬ জুন ২০২০, ১৭:০৫

সাহস ডেস্ক

শেতাঙ্গ পুলিশের হাতে কৃষ্ণাঙ্গ জর্জ ফ্লয়েড হত্যার প্রতিবাদে আমেরিকাজুড়ে চলা বিক্ষোভ দমনে মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের নির্দেশে ওয়াশিংটন ডিসিসহ সারা দেশে পুলিশ, ন্যাশনাল গার্ড ও ফেডারেল ফোর্স মোতায়েন করা হয়। রাজধানী থেকে এই সেনা তুলে নেওয়ার কঠোর আহ্বান জানিয়েছিলেন ওয়াশিংটন ডিসির মেয়র মুরিয়েল বোসার। মোতায়েন থাকা ও হোটেল অবস্থান নেওয়া সেনাসদস্যরা ৫ জুন রাজধানী ত্যাগ করেছেন।

‘দ্য গার্ডিয়ান’-এর এক প্রতিবেদনে বলা হয়, শুক্রবার (৫ জুন) দুপুরের মধ্যে ব্যাগ গুছিয়ে হোটেল ত্যাগ করার প্রস্তুতি নিচ্ছিলেন ইউটাহ ন্যাশনাল গার্ডের দুই শতাধিক সেনাসদস্যরা।

অঙ্গরাজ্যের রিপাবলিকান সিনেটর মাইল লি অভিযোগ করে বলেন, ‘ইউটাহ ন্যাশনাল গার্ডের সদস্যসহ অন্য ন্যাশনাল গার্ডের হাজারো সেনাসদস্যকে হোটেল থেকে ওয়াশিংটন ডিসির মেয়র মুরিয়েল বোসার বের করে দিয়েছেন।’

এ ব্যাপারে ওয়াশিংটন ডিসির মেয়র মুরিয়েল বোসারের অফিস থেকে তাৎক্ষণিক কোনো মন্তব্য পাওয়া যায়নি। লির অফিস থেকে জানানো হয়েছে, ইউটাহ ন্যাশনাল গার্ডের সদস্যরা কোথায় যাচ্ছেন, তা এখনো জানা যায়নি। তবে তাঁদের ওয়াশিংটন ডিসি ছেড়ে যাওয়া উচিত হবে না।

প্রতিবেদনে বলা হয়, প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের নির্দেশে চলতি সপ্তাহের শুরুর দিকে সারা দেশ থেকে প্রায় সাড়ে চার হাজার ন্যাশনাল গার্ডের সেনাসদস্য ওয়াশিংটনে পৌঁছেছেন। তাঁদের পাশাপাশি রাজধানীতে ব্যুরো অব প্রিজনস, ড্রাগ এনফোর্সমেন্ট এজেন্সি, এফবিআই ও ইউএস মার্শাল বিক্ষোভ দমনে কাজ করার কথা। সব মিলিয়ে ওয়াশিংটনে ৭ হাজার ৬০০ সেনাসদস্য ও কর্মকর্তা মোতায়েন করা হয়।

সেনাসদস্যদের রাজধানী থেকে সরিয়ে নিতে প্রেসিডেন্ট ট্রাম্পকে এক চিঠিতে ওয়াশিংটন ডিসির মেয়র মুরিয়েল বোসার বলেছেন, ‘ওয়াশিংটনে সামরিক পুলিশ এবং অন্যান্য ফেডারেল প্রতিষ্ঠানের আইন প্রয়োগকারী ইউনিটগুলোর উপস্থিতির কারণে উদ্বিগ্ন। কারণ এতে জাতীয় নিরাপত্তা হুমকির সম্মুখীন হবে। এখানকার দায়িত্বরত পুলিশ সদস্যরাই বিষয়টি ভালোভাবে মোকাবিলা করতে সক্ষম। এ কারণে ডিসির কর্মকর্তা ও ফেডারেল সরকারের মধ্যে বিভ্রান্তির সৃষ্টি হচ্ছে। এ জন্য ওয়াশিংটন ডিসি থেকে সেনাসদস্য ও ফেডারেল আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর সদস্যদের সরিয়ে নিতে আপনাকে অনুরোধ জানাচ্ছি।’

মেয়র মুরিয়েল বোসার হোয়াইট হাউসের সামনের রাস্তার নতুন নামকরণ করেছেন ‌'Black Lives Matter Plaza'। মূলত এই স্লোগানেই প্রতিবাদে মুখর হয়ে উঠেছে আমেরিকা। হোয়াইট হাউসের সামনের রাস্তায় হলুদ রং দিয়ে এই স্লোগান লিখে দেওয়া হয়। বিক্ষোভকারীদের সম্মান জানাতেই এই নামকরণ বলে জানালেন ওয়াশিংটন ডিসির মেয়র মুরিয়েল বোসার।

সূত্র: দ্য গার্ডিয়ান

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত