x

এইমাত্র

  •  শিগগিরই দেশে পৌঁছাবে রূপপুর বিদ্যুৎকেন্দ্রের পারমাণবিক রিঅ্যাক্টর
  •  সশস্ত্র বিদ্রোহীদের সঙ্গে সংঘর্ষে মারা গেলেন চাদের প্রেসিডেন্ট
  •  দুই জান্নাতকেই কন্ট্রাকচ্যুয়াল বিয়ে করেছিলেন মামুনুল
  •  লকডাউনে থাকছে যেসব বিধিনিষেধ
  •  জামায়াত ও হেফাজত একই সূত্রে গাঁথা: আ.লীগ

‘আরব দেশগুলোর সঙ্গে আগ্রাসনবিরোধী চুক্তি করতে চাচ্ছি’

প্রকাশ : ০৬ অক্টোবর ২০১৯, ১৮:৫৬

টুইটারে দেয়া এক পোস্টে ইসরাইলের পররাষ্ট্রমন্ত্রী ইসরায়েল কার্টজ বলেছেন, ‘যুক্তরাষ্ট্রের সমর্থনে সম্প্রতি একটি রাজনৈতিক উদ্যোগকে এগিয়ে নিতে যাচ্ছি আমরা। আরব দেশগুলোর সঙ্গে একটি আগ্রাসনবিরোধী চুক্তি করতে চাচ্ছি।’

গতকাল ৫ অক্টোবর (শনিবার) এক টুইট বার্তায় একথা বলেন তিনি।

কার্টজ বলেন, ‘এই ঐতিহাসিক উদ্যোগে সংঘাতের অবসান ঘটবে এবং শান্তি চুক্তি সই হওয়ার আগ পর্যন্ত বেসামরিক লোকজনকে সহযোগিতা বাড়াতে সুযোগ করে দেয়া হবে।’

কার্টজ বলেন, ‘এ নিয়ে সেপ্টেম্বরের শেষ দিকে জাতিসংঘের সাধারণ অধিবেশনে উপস্থিত থাকার সময় ডোনাল্ড ট্রাম্পের বিদায়ী দূত জেসন গ্রিনব্লাট ও নাম প্রকাশ না করা আরব পররাষ্ট্র মন্ত্রীদের সঙ্গে আলোচনা করেছি।’

তবে এর বাইরে বিস্তারিত তথ্য দিতে অস্বীকার করেছেন কার্টজের একজন মুখপাত্র। এই চেষ্টার ক্ষেত্রে কতটা অগ্রগতি হয়েছে, তাও পরিষ্কার হওয়া সম্ভব হয়নি।

কেবল জর্ডান ও মিসরের সঙ্গে শান্তি চুক্তি রয়েছে দখলদার ইসরাইলের। তবে আরব দেশগুলোর সঙ্গে সম্পর্ক উন্নয়নের প্রকাশ্য আভাস সম্প্রতি পাওয়া যাচ্ছে।

বছরখানেক আগে মাসকাটে ওমানের সুলতান কাবোসের সঙ্গে আলোচনার মাধ্যমে সবাইকে অবাক করে দেন ইসরাইলি প্রধানমন্ত্রী বেনইয়ামিন নেতানিয়াহু।

গত জুলাইতে কার্টজ বলেন, ‘ওয়াশিংটন সফরে বাহরাইনি পররাষ্ট্র মন্ত্রীর সঙ্গে প্রকাশ্যে বৈঠক করেছি।’

জুনে বাহরাইনে ইসরাইলি-ফিলিস্তিনি শান্তি নিয়ে মার্কিন নেতৃত্বাধীন অর্থনৈতিক সম্মেলনে উপস্থিত হন একদল ইসরাইলি সাংবাদিক।

কিন্তু জুলাইয়ে আরব দেশগুলো থেকে একদল অতিথি ইসরাইল সফরে গেলে ফিলিস্তিনিরা তাদের প্রতিরোধ করেন। এসব আরবদের প্রতি চেয়ার ও জুতা নিক্ষেপ করেন কয়েক দশক ধরে নিপীড়নের শিকার ফিলিস্তিনিরা।

আনুষ্ঠানিকভাবে কূটনৈতিক সম্পর্ক নেই এমন আরব দেশগুলোর সঙ্গে ইসরাইলের সম্পর্কোন্নয়নের চেষ্টা হিসেবে দেখা হচ্ছে এমন উদ্যোগকে।

খবর- এএফপি

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত