সৌরভের হার্টে ৩টি ব্লক

প্রকাশ : ০৩ জানুয়ারি ২০২১, ১৯:১১

সাহস ডেস্ক

গতকাল শনিবার হৃদ্‌রোগে আক্রান্ত হয়ে হাসপাতালে ভর্তি হয়েছিলেন সৌরভ গাঙ্গুলী। তার হার্টের আর্টারিতে তিনটি ব্লকেজ ধরা পড়েছে। ধমনিতে বসানো হয়েছে রিং। ডান দিকের ধমনীতে প্রায় ৯০ শতাংশ ‘ব্লক’ এবং বাকি দুটিতে প্রায় ৭০ শতাংশ ‘ব্লক’ রয়েছে। তবে তার বাইপাস করা না লাগলেও হৃদ্‌যন্ত্রের ধমনিতে আরও দুটি রিং বসাতে হবে। ভারতীয় বিভিন্ন গণমাধ্যমের খবর, এখন অনেকটাই ভালো আছেন তিনি। অক্সিজেন সাপোর্টও আর লাগছে না।

শনিবার (২ জানুয়ারি) সকালে ট্রেডমিলে হাঁটার সময় বুকে-হাতে ব্যথা অনুভব করেন সৌরভ। সময় নষ্ট না করে সঙ্গে সঙ্গে দক্ষিণ কলকাতার এক বেসরকারি হাসপাতালে ও চিকিৎসকের সঙ্গে নিজেই যোগাযোগ করেন সৌরভ গাঙ্গুলি। এরপর হাসপাতালে নিজেই চলে যান।

সেখানে এনজিওগ্রাফি করার পর তার ধমনিতে তিনটি ব্লকেজ ধরা পড়ে। এর মধ্যে একটিতে ৯০ শতাংশ ও অন্য দুটিতে ৭০ শতাংশ করে। সেই সময় তার নাড়ির গতি ৭০ এবং রক্তচাপ ১৩০/৮০ ছিল। এর পরেই সৌরভের ইসিজি ও ইকোকার্ডিয়োগ্রাফি করেন চিকিৎসকেরা। তাতে দেখা যায়, তিনি মৃদু হৃদরোগে আক্রান্ত হয়েছেন। তখনই এনজিওপ্লাস্টি করে ডান দিকের ধমনীতে একটি স্টেন্ট বসানো হয়।

সৌরভের চিকিৎসার জন্য গঠিত মেডিক্যাল বোর্ডের সদস্য আফতাব খান বলেন, ‘লোকাল অ্যানেস্থেশিয়া দিয়ে স্টেন্ট বসানো হয়েছে। উনি সচেতন রয়েছেন। কথাবার্তাও বলছেন।’ 

বোর্ডের আরেক সদস্য হৃদরোগ চিকিৎসক সরোজ মণ্ডল বলেন, ‘অন্য যে দুটি ধমনীতে কম-বেশি সমস্যা রয়েছে, তা নিয়ে বোর্ড পরে প্রয়োজনীয় পদক্ষেপ করবে। রাতে সৌরভকে হালকা খাবার দেওয়া হয়েছে।’

হাসপাতালের এক সূত্রের বরাতে একাধিক গণমাধ্যম জানিয়েছে, পুরোপুরি সুস্থ হয়ে উঠতে অন্তত এক মাস সময় লাগতে পারে সাবেক ভারতীয় অধিনায়কের। তারা জানিয়েছে, রাতে ঘুম হয়েছে তার। রক্তচাপ অনেকটাই স্বাভাবিক হয়ে আসছে। সকালে ইসিজি রিপোর্টও নাকি তার বেশ ভালোই এসেছে। আগামী কয়েক দিন চিকিৎসকদের পর্যবেক্ষণে থাকতে হবে তাকে।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
আপনি কী মনে করেন করোনা ভাইরাস মোকাবেলায় সরকারের পদক্ষেপ সন্তোষজনক?