পেলেকে ছাড়িয়ে বিশ্বসেরা মেসি, দুর্দান্ত বার্সেলোনা

প্রকাশ : ২৩ ডিসেম্বর ২০২০, ১৩:০৯

এক ক্লাবের হয়ে সর্বোচ্চ গোলদাতা এখন মেসি। বড়দিনের আগে বার্সেলোনার সর্বশেষ ম্যাচে কাল রিয়াল ভায়োদলিদের বিপক্ষে একটি গোল করে ব্রাজিলিয়ান কিংবদন্তী খেলোয়াড় পেলের রেকর্ড ভেঙে অন্য এক উচ্চতায় বসলেন বার্সেলোনার আর্জেন্টাইন ফরোয়ার্ড লিওনেল মেসি। সান্তোসের জার্সিতে ৬৪৩ গোল করেছেন পেলে এবং বার্সেলোনার জার্সিতে ৬৪৪ গোল করে এক ক্লাবের হয়ে সবচেয়ে বেশি গোলের মালিক এখন মেসি। যদিও গত শনিবার ভ্যালেন্সিয়ার বিপক্ষে গোল করে পেলেকে স্পর্শ করেছিলেন বার্সা অধিনায়ক।

মঙ্গলবার (২২ ডিসেম্বর) জোসে জোরিলা স্টেডিয়ামে স্প্যানিশ লা লিগায় স্বাগতিক রিয়াল ভায়োদলিদকে ৩-০ গোলে হারিয়েছে রোনাল্ড কোম্যানের শিষ্যরা। মেসি ছাড়াও বাকি গোল দুটি করেছেন ক্লেমন লংলে ও মার্টিন ব্রাথওয়েট। এই দুই গোলেও অবদান রেখেছেন মেসি।

ম্যাচের দ্বিতীয়ার্ধ্বে রেকর্ডসূচক গোলটি করেন মেসি। এর আগে কিংবদন্তি পেলে সান্তোসের হয়ে ১৯৫৬ ও ১৯৭৪ সালের মধ্যবর্তী সময়ে ১৮ বছরে ৬৪৩টি গোল করে বিশ্বরেকর্ড করেছিলেন। পেলের সেই বিশ্ব রেকর্ডের মালিক এখন বার্সেলোনার আর্জেন্টাইন ফরোয়ার্ড লিওনেল মেসি।

ম্যাচের ২১ মিনিটে লংলের গোলটি এসেছে মেসির দুর্দান্ত ক্রসে মাথা ছুঁইয়ে। ৩৫ মিনিটে ব্রাথওয়েইটের গোলটিতে ‘অ্যাসিস্ট’ মেসির নয়, ডান দিক থেকে দেস্তের ক্রসে পা ছুঁইয়ে গোলটা করেছেন ব্রাথওয়েইট...কিন্তু দেস্তের জন্য প্রতিপক্ষের রক্ষণমুখ খুলে দিয়েছেন মেসিই। শুধু তাঁর গোলটাই বাকি ছিল।

এরপর ম্যাচের ৬৫ মিনিটে মেসির সঙ্গে পেদ্রির সমন্বয়ের সুফল পেল বার্সা। বক্সের বাইরে দুজনের ওয়ান-টু, পেদ্রির চোখধাঁধানো ব্যাক ফ্লিক ধরে বক্সে ঢুকে যান মেসি। এবার আর মেসির বাঁ পায়ের শট ঠেকানোর সাধ্য ছিল না ভায়াদোলিদ গোলকিপারের। অবশেষে গোলটি করে নিজেকে এক উচ্চতায় নিয়ে গেলেন আর্জেন্টাইন নাম্বার দশ।

পরে ৩-০ গোলের জয় নিয়ে মাঠ ছাড়ে বার্সেলোনা। খেলা শেষে নিজের ইন্সটাগ্রামে মেসি লিখেছেন, ‘আমি যখন ফুটবল শুরু করি তখন আমি কক্ষনো ভাবিনি আমি কোন রেকর্ড ভাঙবো। বিশেষ করে পেলের রেকর্ডটা, যেটা এখন আমার।’ এই সাফল্যের জন্য সতীর্থ, পরিবার ও বন্ধুদেরকে ধন্যবাদ জানান মেসি।

এর আগে মেসি ৬৪৩টি গোল করার পর সামাজিক যোগাযোগমাধ্যমে সাধুবাদ জানিয়েছিলেন পেলে। একটি পোস্টে মেসিকে উদ্দেশ্য করে তিনি লিখেছিলেন, ‘যখন কোনো কিছুর প্রতি ভালোবাসা হৃদয়কে পরিপূর্ণ করে তোলে, তখন তা এড়ানো বা সে পথ পরিবর্তন করা সত্যিই কঠিন। যেখানে নিজ বাড়ির মতো অনুভূতি পাওয়া যায় সে জায়গার চেয়ে আপন আর কিছুই হতে পারে না।’

মেসিকে উদ্দেশ্য করে পেলে আরও লেখেন, ‘মেসির মতো দীর্ঘদিন ভালোবেসে একই ক্লাবের হয়ে খেলার মতো এমন উদাহরণ খুব কমই আছে ফুটবলে। আর এ জন্য মেসিকে সম্মান ও শ্রদ্ধা জানাই।’

এই জয়ে ১৪ ম্যাচে ২৪ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের ৫ম স্থানে উঠে এসেছে বার্সেলোনা। ১৩ ম্যাচে ৩২ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের শীর্ষে আছে অ্যাতলেটিকো মাদ্রিদ। ১৪ ম্যাচে ২৯ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের দ্বিতীয়তে আছে রিয়াল মাদ্রিদ। ১৬ ম্যাচে ২৬ পয়েন্ট নিয়ে টেবিলের তৃতীয়তে আছে রিয়াল সোসিয়েদাদ। ১৫ ম্যাচে ২৬ পয়েন্ট নিয়ে গোল ব্যবধানে পিছিয়ে থেকে টেবিলের চতুর্থস্থানে আছে ভিয়ারিয়াল।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
আপনি কী মনে করেন করোনা ভাইরাস মোকাবেলায় সরকারের পদক্ষেপ সন্তোষজনক?