সজীবের আত্মহত্যা তাড়া করছে মুশফিক'কে

প্রকাশ : ১৬ নভেম্বর ২০২০, ১৪:৩৮

স্পোর্টস ডেস্ক

ক্রিকেটের বাইরেও ক্রিকেটারদের একটা জীবন থাকে, এবং সেটির গুরুত্ব কোনো অংশেই কম নয়। মুশফিকুর রহিম এটা মনেপ্রাণে বিশ্বাস করেন। আর করেন বলেই তরুণ ক্রিকেটার সজীবুল ইসলামের আত্মহত্যা তাঁকে তাড়া করছে। কিছুতেই মেনে নিতে পারছেন না সামান্য হতাশা থেকে আত্মহননের মতো সিদ্ধান্ত নিয়ে নিতে পারাকে।

সজীবুলের মৃত্যুতে শোকের ছায়া ছুঁয়ে গেছে দেশের ক্রিকেটপ্রেমীদের। ২২ বছর বয়সী রাজশাহীর এই ক্রিকেটার ২০১৮ যুব বিশ্বকাপে বাংলাদেশ অনূর্ধ্ব–১৯ দলের স্ট্যান্ডবাই ক্রিকেটার ছিলেন। তাঁর পরিবার দাবি করেছে আসন্ন বঙ্গবন্ধু টি–টোয়েন্টি কাপে সুযোগ না পাওয়ার হতাশা থেকেই আত্মহত্যা করেছেন এই সম্ভাবনাময় তরুণ ক্রিকেটার।

নিজের ফেসবুক পেজে সজীবকে স্মরণ করে মুশফিক লিখেছেন, ‘আমরা সবাই ক্রিকেটকে ভালোবাসি। কিন্তু মনে রাখতে হবে ক্রিকেটের বাইরেও একটা জীবন আছে। আমাদের দেশের একজন সম্ভাবনাময় তরুণ ক্রিকেটারের মৃত্যু সংবাদে খুবই কষ্ট পেয়েছি। ব্যাপার যা-ই হোক, আমি সবাইকে অনুরোধ করব আত্মহত্যা বা এ জাতীয় কিছু করার আগে নিজের প্রিয়জন, পরিবারের সদস্যদের কথা ভাবা। আত্মহনন কোনো কিছুরই পরিণতি হতে পারে না। আমাদের সবার জন্যই আল্লাহ সবকিছু ঠিক করে রেখেছেন। আমাদের মহান আল্লাহর সেই পরিকল্পনায় অবশ্যই বিশ্বাস রাখতে হবে। আমি সজীবের বিদেহী আত্মার শান্তি কামনা করছি। ইন্না লিল্লাহি ওয়া ইন্না ইলাইহি রাজিউন...।’

রাজশাহীর দুর্গাপুর থানার ঝালুকা গ্রামের বাসিন্দা সজীবুল ছিলেন রাজশাহী কলেজের ইতিহাসে তৃতীয় বর্ষের ছাত্র। তিনি বিসিবি অনূর্ধ্ব–১৫, ১৭ ও ১৯ দলের খেলোয়াড় ছিলেন। লিস্ট ‘এ’ ম্যাচ খেলেছেন তিনটি। উত্তরা স্পোর্টিং ক্লাবের হয়ে ঢাকা প্রিমিয়ার লিগেও খেলেছেন। রাজশাহীর বাংলা ট্র্যাক ক্রিকেট একাডেমির ছাত্র ছিলেন সজীব। অনুশীলন করতেন সেখানেই।

সজীবের পারিবারিক সূত্র জানিয়েছে বঙ্গবন্ধু টি–টোয়েন্টি কাপে দল না পেয়ে খুব হতাশ হয়ে পড়েছিলেন তিনি। শনিবার রাতে সেই হতাশা তাঁকে ভয়ংকরভাবে আকাত্র করে। রাতে কিছু না খেয়েই ঘুমিয়ে পড়েছিলেন। সকালে ডাকাডাকির পর সাড়াশব্দ না পেয়ে তাঁর বাবা ঘরের জানালা দিয়ে ছেলের ঝুলন্ত মৃতদেহ দেখতে পান।

রাজশাহীর বাংলা ট্র্যাক ক্রিকেট একাডেমিতে জাতীয় দলের সাবেক অধিনায়ক ও বিসিবির গেম ডেভেলপমেন্ট প্রধান খালেদ মাহমুদ ছিলেন তাঁর কোচ। তিনি হতবাক ছাত্রের এমন মৃত্যুতে। মাহমুদ বলেছেন, ‘সজীব খুবই ভালো ক্রিকেটার ছিল। ভদ্র ও বিনয়ী। কেন এমন করল সে বলতে পারছি না। আমি খুবই অবাক এ ঘটনায়।’

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
আপনি কী মনে করেন করোনা ভাইরাস মোকাবেলায় সরকারের পদক্ষেপ সন্তোষজনক?