x

এইমাত্র

  •  বৃষ্টির সময় ছেলেকে খুঁজতে বের হয়ে বাবাসহ ৯ জনের মৃত্যু
  •  করোনায় সারা বিশ্বে মৃতের সংখ্যা ৩ লাখ ৯৮ হাজার ৫৩৫ জন
  •  করোনায় বিশ্বজুড়ে আক্রান্ত ৬৮ লাখের অধিক, সুস্থ হয়েছেন ৩৩ লাখেরও বেশী
  •  যুক্তরাষ্ট্রের চেয়ে বেশি কোভিড রোগী আছে ভারত, চীনে: ট্রাম্প
  •  করোনাভাইরাসঃ বাংলাদেশে আরও ৩৫ জনের মৃত্যু, নতুন শনাক্ত ২৬৩৫ জনের

করোনা মোকাবেলায় ৬ মাসের বেতন দিলেন ভারতীয় কুস্তিগিরি

প্রকাশ : ২৫ মার্চ ২০২০, ১৪:৩৪

সাহস ডেস্ক

বৈশ্বিক মহামারী করোনাভাইরাসের বিরুদ্ধে লড়ছে গোটা বিশ্ব। নিজ নিজ দেশের মানুষদের এই বিপদের দিনে সামর্থ্য অনুযায়ী এগিয়ে আসছেন অনেকেই। এই তালিকায় আছেন ক্রীড়া জগতের তারকারাও। এই যেমন নিজের ছ'মাসের বেতন করোনা প্রতিরোধ তহবিলে দান করার কথা জানালেন ভারতীয় কুস্তিগির বজরং পুনিয়া।

পুরো বিশ্বের মতো ভারতও করোনার শিকার হয়েছে। এখন পর্যন্ত দেশটিতে করোনা ভাইরাসে আক্রান্ত হয়েছেন ৫১১ জন। মারা গেছেন ১০ জন। পরিস্থিতি মোকাবিলায় ভারতের ৩২টি রাজ্য এবং ৭টি কেন্দ্র শাসিত অঞ্চল লকডাউন ঘোষণা করা হয়েছে। প্রতিটি রাজ্যে বাড়ানো হয়েছে নিরাপত্তা ব্যবস্থা।

দেশটির নাগরিকদের নিজ নিজ ঘরে থাকার আহবান জানিয়ে 'জনতা কারফিউ' ঘোষণা করেছেন ভারতের প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদী। দেশটির প্রতিটি রাজ্য এখন করোনার বিরুদ্ধে লড়াই করছে। নিজ দেশের এমন দশা থেকে মন খারাপ ২০১৯ বিশ্ব চ্যাম্পিয়নশিপের ব্রোঞ্জ পদকজয়ী বজরংয়েরও। এজন্যই ৬ মাসের বেতন করোনা মোকাবিলা তহবিলে দেওয়ার সিদ্ধান্ত নেন তিনি।

পেশাদার কুস্তিগির হলেও ভারতীয় রেলওয়ের স্পেশাল ডিউটি অফিসার পদে কর্মরত বজরং। সেখানে থেকে প্রাপ্ত ছয় মাসের বেতনই দিয়ে দিচ্ছেন তিনি। এক টুইটে তিনি লেখেন, 'করোনা ভাইরাসে (কোভিড-১৯) আক্রান্তদের চিকিৎসার জন্য হরিয়ানার মুখ্যমন্ত্রী মোহনলাল খাট্টার একটি ত্রাণ তহবিল গঠন করেছেন। সেই তহবিলেই নিজের ৬ মাসের বেতন দান করলাম।'

বজরং পুনিয়া অন্য ক্রীড়া তারকাদেরও 'হরিয়ানা করোনা রিলিফ ফান্ড' এ অর্থসাহায্য করা আহবান জানিয়েছেন। তার এই পদক্ষেপকে সাধুবাদ জানাচ্ছেন নেটিজেনরা। এমনকি ভারতের ক্রীড়ামন্ত্রী কিরেন রিজিজুও তাকে সাধুবাদ জানিয়েছেন। পুনিয়ার পথ ধরে সাবেক ভারতীয় ক্রিকেটার ও বিজেপি'র সাংসদ গৌতম গম্ভীরও দিল্লির সরকারি হাসপাতালে করোনা আক্রান্তদের চিকিৎসা খরচ বাবদ ৫০ লাখ টাকা সরকারি ফান্ডে অনুদান দিয়েছেন।

বিশ্বব্যাপী এখন পর্যন্ত করোনায় আক্রান্ত হয়েছেন ২ লাখ ৯৫ হাজার ৫৮৩ জন আর মারা গেছেন ১৭ হাজার ২৩৪ জন।

সূত্র: বাংলানিউজটোয়েন্টিফোর.কম

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত