x

এইমাত্র

  •  তিন পার্বত্য জেলায় সেনাবাহিনীর ছেড়ে যাওয়া ক্যাম্পে পুলিশ মোতায়েন করা হবে: স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী
  •  মিয়ানমারে বিক্ষোভকারীদের ওপর গুলি, নিহত ৬
  •  ইউপি নির্বাচনে অংশ নেবে না বিএনপি: ফখরুল

২৮ জানুয়ারির মধ্যে এইচএসসি ও সমমানের ফল প্রকাশ

প্রকাশ : ১১ জানুয়ারি ২০২১, ১৪:৫২

সাহস ডেস্ক
ফাইল ছবি

‘উচ্চ মাধ্যমিক ও সমমান পরীক্ষার ফল-২০২০’ প্রকাশে মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড আইন এবং বাংলাদেশ কারিগরি শিক্ষা বোর্ড আইন সংশোধনের প্রস্তাব অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রিসভা। এজন্য ‘মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড (সংশোধিত) অধ্যাদেশ, ১৯৬১’ এবং সংশোধিত ‘বাংলাদেশ কারিগরি শিক্ষা বোর্ড আইন, ২০১৮’ ও ‘বাংলাদেশ মাদ্রাসা শিক্ষা বোর্ড আইন, ২০২০’-এর খসড়া অনুমোদন পেয়েছে মন্ত্রিসভা।

সোমবার (১১ জানুয়ারি) প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনার সভাপতিত্বে ভার্চুয়াল মন্ত্রিসভার বৈঠকে এই অনুমোদন দেওয়া হয়। গণভবন থেকে প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা এবং সচিবালয়ের মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ থেকে মন্ত্রীরা ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে বৈঠকে যোগ দেন।

গণভবন থেকে প্রধানমন্ত্রী ভিডিও কনফারেন্সের মাধ্যমে এ বৈঠকে সভাপতিত্ব করেন। বৈঠক শেষে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগের সচিব ড. খন্দকার আনোয়ারুল ইসলাম সাংবাদিকদের এসব তথ্য জানান।

মন্ত্রিপরিষদ সচিব খন্দকার আনোয়ারুল ইসলাম বলেন, মাধ্যমিক ও উচ্চ শিক্ষা বিভাগ এবং কারিগরি ও মাদ্রাসা বিভাগ থেকে নিয়ে আসা হয়েছিল যে, অধ্যাদেশ করে আগামী বুধ, বৃহস্পতিবার বা শনিবারের মধ্যে (এইচএসসি) রেজাল্ট দিয়ে দেয়া যায় কি না। যে পদ্ধতিতে ওনারা চিন্তা-ভাবনা করছেন, রেজাল্ট ক্যালকুলেশন করে রেডি করে রেখেছেন, কিন্তু আগের আইনের বিধান হলো, পরীক্ষা নিয়ে রেজাল্ট দিতে হবে। কিন্তু এখন যেহেতু পরীক্ষা নেয়া সম্ভব হচ্ছে না, ওনারা যে পদ্ধতিতে রেজাল্ট রেডি করে রেখেছেন, সেই পদ্ধতিতে আগামী ৭-১০ দিনের মধ্যে রেজাল্ট দিয়ে দেবেন।

শিক্ষামন্ত্রী ডা. দীপু মনি বলেন, বিদ্যমান আইনে পরীক্ষা ছাড়া ফল প্রকাশের বিধান নেই। তাই এইচএসসি পরীক্ষার ফল প্রকাশে সংশোধিত মাধ্যমিক ও উচ্চ মাধ্যমিক শিক্ষা বোর্ড আইন অনুমোদন দিয়েছে মন্ত্রিসভা। সংশোধিত আইনের খসড়া আগামী ১৮ জানুয়ারি সংসদের শীতকালীন অধিবেশনে উপস্থাপন ও পাসের পর এইচএসসির ফলাফল প্রকাশ করা হবে। সংশোধিত আইন অনুযায়ী দুর্যোগকালীন পরীক্ষা নিতে সক্ষম না হলে মূল্যায়ন তথা ফলাফল দেওয়ার বিধান যুক্ত করা হয়েছে।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত