আশাশুনিতে স্ত্রীকে কুপিয়ে হত্যার অভিযোগে স্বামী গ্রেপ্তার

প্রকাশ : ১৯ সেপ্টেম্বর ২০২২, ১৬:৫০

সাহস ডেস্ক

সাতক্ষীরার আশাশুনিতে স্বামীর বিরুদ্ধে স্ত্রী শামসুন্নাহারকে কুপিয়ে হত্যার অভিযোগ উঠেছে। সোমবার (১৯ সেপ্টেম্বর) ভোর রাতে উপজেলার প্রতাপনগর গ্রামে এ ঘটনা ঘটে। এ ঘটনার পর স্বামী গোলাম মোস্তফা সরদারকে শ্যামনগর উপজেলার পদ্মপুকুর ইউনিয়নের পাতাখালি এলাকা থেকে আটক করেছে পুলিশ। নিহত শামসুন্নাহার (৪৫) প্রতাপনগর এলাকার গোলাম মোস্তফা সরদারের স্ত্রী। তাদের তিন সন্তান রয়েছে।

গোলাম মোস্তফার ভাই নুরুল ইসলাম বলেন, গোলাম মোস্তফা মানসিকভাবে কিছুটা অসুস্থ। প্রত্যেক মাসে একবার ইনজেকশন দেওয়া লাগে। না দিলে পাগলামি বেড়ে যায়। সম্প্রতি তার পাগলামি বেড়ে গিয়েছিল। রাতে স্বামী-স্ত্রী একসঙ্গে ঘুমিয়ে ছিল। ভোর রাতে শামসুন্নাহারের গোঙানি শুনে তাদের ঘরের পাশে গিয়ে দরজা বন্ধ দেখতে পাই। ধাক্কাধাক্কির এক পর্যায়ে গোলাম মোস্তফা দরজার ছিটকানি খুলে পালিয়ে যায়। তিনি বলেন, ভেতরে গিয়ে শামসুন্নাহারকে মুমূর্ষু অবস্থায় দেখতে পেয়ে হাসপাতালে নেওয়ার জন্য ভ্যান ডাকতে থাকি। এর মধ্যে শামসুন্নাহার মারা যায়।

আশাশুনি থানা পুলিশের ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মোমিনুর রহমান বলেন, গৃহবধূর স্বামী এলাকায় মোস্ত পাগলা নামে পরিচিত। ভোররাতে নামাজ পড়তে উঠেছিল মোস্ত। এ সময় কোনো বিষয় নিয়ে তর্কাতর্কি হয় স্বামী-স্ত্রীর মধ্যে। এরপর মোস্তফা কুপিয়ে স্ত্রীকে মেরে পালিয়ে যায়। স্বামী গোলাম মোস্তফা সরদারকে শ্যামনগরের পদ্মপুকুর ইউনিয়নের পাতাখালি এলাকা থেকে আটক করা হয়েছে এবং মৃতদেহ সাতক্ষীরা সদর হাসপাতালে ময়নাতদন্তের জন্য পাঠানো হয়েছে।

সাহস২৪.কম/এএম/এসকে.

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত
নির্বাচন কমিশনের ওপর মানুষের আস্থা এখন শূন্যের কোঠায় পৌঁছেছে বলে মন্তব্য করেছেন জাতীয় পার্টির চেয়ারম্যান জিএম কাদের। আপনিও কি তাই মনে করেন?