x

এইমাত্র

  •  আরও এক সপ্তাহের কঠোর লকডাউনের সুপারিশ
  •  সৌদিতে ১৭ মে থেকে আন্তর্জাতিক ফ্লাইট চলাচল শুরু
  •  ১৭ মে থেকে সৌদি আরবে আন্তর্জাতিক ফ্লাইট চালুর ঘোষণা
  •  সাতদিনের রিমান্ডে হেফাজত নেতা মামুনুল হক
  •  লকডাউনের মেয়াদ আরও ৭ দিন বাড়তে পারে

১৪ মার্চ আকাশ তরী ও শ্বেত বলাকার উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী

প্রকাশ : ০৭ মার্চ ২০২১, ১৪:৩৩

সাহস ডেস্ক

বাংলাদেশ ও কানাডা সরকারের মধ্যে জি-টু-জি ভিত্তিতে ক্রয় করা নতুন দুটি উড়োজাহাজ আগামী ১৪ মার্চ উদ্বোধন করবেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। উড়োজাহাজ দু’টির নামকরণ করেছেন প্রধানমন্ত্রী। একটির নাম আকাশ তরী, অন্যটি নাম শ্বেত বলাকা।

২০১৮ সালের ১ আগস্ট বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের জন্য নতুন তিনটি ড্যাশ-৮ কিউ ৪০০ এনজি উড়োজাহাজ কেনার জন্য চুক্তি স্বাক্ষর হয়।

বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের এ চুক্তি স্বাক্ষর হয় কানাডিয়ান কমার্শিয়াল করপোরেশনের (সিসিসি) সঙ্গে। চুক্তির আওতায় কানাডার বিমান নির্মাতা প্রতিষ্ঠান বম্বার্ডিয়ার ইনকরপোরেশনের উড়োজাহাজ সরবরাহ করবে। পরবর্তীতে বম্বার্ডিয়ার তাদের ড্যাশ-৮ সিরিজের উড়োজাহাজের সত্ত্ব বিক্রি করে দেয় আরেক উড়োজাহাজ নির্মাতা  প্রতিষ্ঠান ‘ডি হ্যাভিল্যান্ড’ এর কাছে।

এ চুক্তির তিনটি উড়োজাহাজ ২০২০ সালের শুরুর দিকে সরবরাহ করার কথা থাকলোও করোনা মহামারির কারণে বিলম্বিত হয়। ৩টি ড্যাশ-৮ এর তৃতীয়টি শুক্রবার (৫ মার্চ) বিকেল ৫ টা ৩৬ মিনিটে হজরত শাহজালাল আন্তর্জাতিক বিমানবন্দরে পৌঁছায়।

বেসামরিক বিমান পরিবহন ও পর্যটন প্রতিমন্ত্রী মাহবুব আলী বলেন, আশা করি আগামী ১৪ মার্চ প্রধানমন্ত্রী ‘আকাশ তরী’ ও ‘শ্বেত বলাকা’ আনুষ্ঠানিকভাবে উদ্বোধন করবেন। বহরে এই ড্যাশ- ৮ উড়োজাহাজগুলো যুক্ত হওয়ার ফলে বিমান তার অভ্যন্তরীণ, স্বল্প দূরত্বের আন্তর্জাতিক রুট ও আঞ্চলিক রুট গুলোতে ফ্লাইট ফ্রিকোয়েন্সি বৃদ্ধি করবে। একই সঙ্গে অভ্যন্তরীণ ও স্বল্প দূরত্বের আন্তর্জাতিক রুটে যাত্রীদের আরও উন্নত ইন-ফ্লাইট সেবা প্রদান করা সম্ভব হবে।

বিমান জানিয়েছে, কানাডার বিখ্যাত এয়ারক্রাফট নির্মাতা প্রতিষ্ঠান ডি হ্যাভিল্যান্ড নির্মিত অত্যাধুনিক নতুন ড্যাশ ৮-৪০০ পরিবেশবান্ধব এবং অত্যাধুনিক সুযোগ-সুবিধা সমৃদ্ধ। উড়োজাহাজটিতে আসন রয়েছে ৭৪টি। এ উড়োজাহাজে রয়েছে হেপা ফিল্টার প্রযুক্তি, যা মাত্র ৪ মিনিটেই ব্যাকটেরিয়া, ভাইরাসসহ অন্যান্য জীবাণু ধ্বংসের মাধ্যমে বাতাসকে সম্পূর্ণ বিশুদ্ধ করে। এ ছাড়া এ উড়োজাহাজে রয়েছে বেশি লেগ স্পেস, এল ই ডি লাইটিং এবং প্রশস্ত জানালা।

বিমান বাংলাদেশ এয়ারলাইন্সের নতুন উড়োজাহাজটি বহরে যুক্ত হওয়ার পর উড়োজাহাজের সংখ্যা দাঁড়িয়েছে ২১টি। এরমধ্যে ১৬টি নিজস্ব এবং ৫টি লিজ। নিজস্ব ১৬টির মধ্যে চারটি বোয়িং ৭৭৭-৩০০ ইআর, চারটি বোয়িং ৭৮৭-৮ ড্রিমলাইনার, দুটি বোয়িং ৭৮৭-৯ ড্রিমলাইনার, দুটি বোয়িং ৭৩৭ এবং ৪টি ড্যাশ-৮ উড়োজাহাজ।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত