x

এইমাত্র

  •  ১৭-২৩ মে ‘লকডাউন’, প্রজ্ঞাপন জারি

রাজধানীতে ১০ বাসে আগুন, ছয় থানায় ৯ মামলা

প্রকাশ : ১৩ নভেম্বর ২০২০, ১৬:৫৯

সাহস ডেস্ক

রাজধানী ঢাকায় দুটি সরকারি স্টাফ বাস ও বিআরটিসির একটি ডাবল ডেকার বাসসহ বৃহস্পতিবার সারা দিনে ১০টি বাসে আগুন দেওয়ার ঘটনায় ছয় থানায় ৯টি মামলা দায়ের করেছে পুলিশ। এসব মামলায় আসামি করা হয়েছে ৪৪৬ জনকে।

বৃহস্পতিবার (১২ নভেম্বর) রাত পর্যন্ত শাহবাগ ও পল্টন থানায় ২টি করে মোট ৪টি মামলা দায়ের করা হয়। শাহবাগ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) মামুন-উর-রশিদ এ তথ্য নিশ্চিত করেছেন।

আসামিদের মধ্যে বিএনপি মনোনীত ঢাকা দক্ষিণের পরাজিত মেয়র প্রার্থী ইশরাক হোসেনও রয়েছেন। বাকি আসামিদের বেশিরভাগই বিএনপি ও এর অঙ্গসংগঠনের নেতাকর্মী।

বৃহস্পতিবার (১২ নভেম্বর) বেলা সাড়ে ১২টার পর রাজধানীর বিভিন্ন স্থানে এসব বাসে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনা ঘটে।

রাত পৌনে ৮টার দিকে উত্তরার আজমপুরে যাত্রীবাহী বাসে আগুন দেয় দুর্বৃত্তরা। খবর পেয়ে ফায়ার সার্ভিসের কর্মীরা এসে আগুন নিয়ন্ত্রণে আনে। এ ঘটনায় হতাহতের খবর পাওয়া যায়নি।

এর আগে বৃহস্পতিবার দুপুর ১২টা থেকে বিকেল সাড়ে ৪টার মধ্যে নয়াপল্টনে, গুলিস্তান, আজিজ সুপার মার্কেটের সামনে, সচিবালয়ের উত্তর পাশে, পুরান ঢাকার নয়াবাজারে, পল্টন, মতিঝিল ও ভাটারায় নয়টি বাসে আগুন দেয় দুর্বৃত্তরা।

ফায়ার সার্ভিস ও সিভিল ডিফেন্সের কন্ট্রোল রুমের ডিউটি অফিসার রাসেল আহমেদ জানান, বেলা ১২টা ৩৫ মিনিটে গুলিস্তানের মধুমিতা সিনেমা হলের সামনে প্রথম বাসটিতে আগুন দেওয়া হয়। পরে বেলা দেড়টায় এলাকার পীর ইয়ামেনি মার্কেটের পাশে দ্বিতীয় বাসটিতে আগুন দেওয়া হয়। 

বেলা ১টা ৪৭ মিনিটের দিকে শাহবাগ এলাকার কাঁটাবনে ও খিলগাঁও এলাকার শাজাহানপুরে একটি করে আরও দুটি বাসে আগুন দেওয়া হয়। পরে বেলা ২টা ২ মিনিটের দিকে বাংলাদেশ সচিবালয়ের সামনে পঞ্চম, ২.২৮ মিনিটে নয়াবাজার এলাকায় ষষ্ঠ এবং ৪টা ৩২ মিনিটে ভাটারায় সপ্তম বাসে আগুন দেওয়া হয়।

পুলিশ জানিয়েছে, আজমপুরে বাসে অগ্নিসংযোগের ঘটনায় জড়িত সন্দেহে একজনকে আটক করা হয়েছে। এ ছাড়া দুপুরে পুরান ঢাকার নয়াবাজারে যাত্রীবাহী দিশারী পরিবহনের বাসে আগুন দেওয়ার ঘটনায় জড়িত সন্দেহে রাতে দুজনকে আটক করেছে পুলিশ। এ নিয়ে সারা দিনে ১০টি বাসে অগ্নিসংযোগের ঘটনায় মোট ১২ জনকে আটকের তথ্য জানিয়েছে পুলিশ।

এ বিষয়ে ঢাকা মেট্রোপলিটনের (ডিএমপি) উপকমিশনার (মিডিয়া) ওয়ালিদ হোসেন বলেন, আমরা ধারণা করছি, ঢাকা-১৮ সংসদীয় আসনের নির্বাচনের সঙ্গে অগ্নিকাণ্ডের ঘটনার যোগসূত্র রয়েছে। আমরা তদন্ত সাপেক্ষে গণমাধ্যমকে বিস্তারিত জানাবো।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত