x

এইমাত্র

  •  গত ২৪ ঘন্টায় করোনায় নতুন সংক্রমিত ৩০২৭ জন, মৃত ৫৫ জন
  •  বান্দরবানে জেএসএস’র দুই গ্রু‌পের গোলাগু‌লিতে নিহত ৬
  •  মহামারি করোনাভাইরাসে বিশ্বব্যাপী মৃত্যু ৫ লাখ ৪০ হাজার, আক্রান্ত ১ কোটি ১৭ লাখেরও বেশি
  •  ভারতে মৃত্যু ২০ হাজারের বেশি, আক্রান্ত ৭ লাখ পার
  •  সারাদেশে করোনার উপসর্গ নিয়ে গত ২৪ ঘন্টায় ২৬ জনের মৃত্যু

ডেকে নিয়ে যুবলীগ নেতাকে হত্যা: আরেক আসামি ‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত

প্রকাশ : ২৬ আগস্ট ২০১৯, ১২:০৮

কক্সবাজারের টেকনাফের হ্নীলায় বাড়ি থেকে ধরে নিয়ে ওমর ফারুক (৩০) নামের এক যুবলীগ নেতাকে গুলি করে হত্যায় অভিযুক্ত মো. হাসান (২০) নামে আরেক আসামি পুলিশের সঙ্গে ‌‘বন্দুকযুদ্ধে’ নিহত হয়েছেন। এ পর্যন্ত এ মামলার তিনজন আসামি নিহত হলো।

সোমবার (২৬ আগস্ট) ভোরে শালবাগান ক্যাম্প সংলগ্ন রোহিঙ্গা পাহাড়ি বস্তিতে এ বন্দুকযুদ্ধের ঘটনা ঘটে। ঘটনাস্থল থেকে অস্ত্র ও গুলি উদ্ধার করা হয়েছে।

নিহত হাসান টেকনাফের নয়াপাড়া শরণার্থী শিবিরের ই-ব্লকের মো. আমিরুল ইসলামের ছেলে।

টেকনাফ থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা (ওসি) প্রদীপ কুমার দাশ জানান, গত ২৪ আগস্ট সন্ধ্যায় ক্যাম্প সংলগ্ন এলাকা থেকে রোহিঙ্গা সন্ত্রাসী হাসানকে আটক করে। পরে তার স্বীকারোক্তি অনুযায়ী ভোরে অস্ত্র উদ্ধারের জন্য শালবাগান ক্যাম্প সংলগ্ন রোহিঙ্গা পাহাড়ি বস্তিতে অভিযান চালানো হয়। এ সময় পুলিশের উপস্থিতি টের পেয়ে হাসানের সহযোগীরা লক্ষ্য করে গুলি ছোড়ে। আত্মরক্ষার্থে পুলিশও পাল্টা গুলি ছোড়ে। একপর্যায়ে রোহিঙ্গা সন্ত্রাসীরা পিছু হটলে ঘটনাস্থল থেকে একটি দেশীয় তৈরি বন্দুক ও গুলিসহ গুলিবিদ্ধ গুরুতর আহত অবস্থায় হাসানকে উদ্ধার করা হয়। গুলিবিদ্ধ হাসানকে প্রথমে টেকনাফ হাসপাতালে পরে সেখান থেকে কক্সবাজার সদর হাসপাতালে নেওয়ার পথে তার মৃত্যু হয়।

উল্লেখ্য, ডাকাত সর্দার সেলিমের নেতৃত্বে বৃহস্পতিবার রাত ১০টার দিকে ওমর ফারুকের বাড়ির সামনে থেকে তাকে তুলে নিয়ে যায় রোহিঙ্গা একদল অস্ত্রধারী সন্ত্রাসী। এক পর্যায়ে তাকে পাহাড়ে নিয়ে গিয়ে গুলি করে হত্যা করে। খবর পেয়ে নিহতের ভাই আমির হামজা ও উসমানসহ স্বজনরা মরদেহ আনতে গেলে ডাকাতদল মরদেহ আনতে বাধা দেয়। পরে খবর পেয়ে পুলিশ লাশ উদ্ধার করে।

  • সর্বশেষ
  • সর্বাধিক পঠিত